Join Our Telegram(39K+) Join Now
Join Whatsapp Group Join Now

ক্লাস টেনে ‘খারাপ ছাত্র’ থেকে ইনি আজ গুজরাতের IAS অফিসার, ভাইরাল রেজাল্টের ছবি

the-gujrat-dms-class-ten-result-goes-viral-as-he-hardly-managed-to-get-pass-marks


অংক ইংরেজিতে 30 এর ঘরে নম্বর, অথচ আজ তিনি গুজরাটের একজন জেলাশাসক ।  রেজাল্টের ছবি সোশ্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল!

তুষার ডি সুমেরা মাধ্যমিকে তিনটি বিষয়ে তাঁর প্রাপ্ত নম্বর তিরিশের কোঠাও ছাড়ায়নি। দু’টি বিষয়ে টেনেটুনে খুব কষ্টে ৪০ নম্বর। অথচ সেই ‘খারাপ ছাত্র’ এখন গুজরাতের আইএএস অফিসার।

তিনটি বিষয়ে প্রাপ্ত নাম্বার ৩০-এর ঘরে  আর দুটো বিষয়ে প্রাপ্ত নাম্বার টেনেটুনে ৪০ ! পাড়া-প্রতিবেশী এমনকি আত্মীয়-স্বজন, স্কুলের টিচারেরাও ভবিষ্যদ্বাণী করে ফেলেছিলেন যে এ ছেলের হয়তো আর কিছু হবে না!

কিন্তু সেসব ভবিষ্যৎবাণী কে ভুল প্রমাণিত করে বর্তমানে তিনি একজন সফল IAS অফিসার। নাম তুষার ডি সুমেরা। ক্লাস টেনে তার এরকম খারাপ রেজাল্ট এর পরেও তার অদম্য ইচ্ছাকে দমিয়ে রাখা যায়নি।

2012 সালে তিনি IAS অফিসার হন। কঠোর পরিশ্রম করে তিনি UPSC  পাশ করেন। বর্তমানে তিনি গুজরাটের ভারুচের জেলাশাসক। সম্প্রতি সোশ্যাল সাইটে নিজের ক্লাস টেন এর মার্কশিট এর ছবি শেয়ার করেন তিনি।

Read more:

ইংরেজি অংক এবং বিজ্ঞানে তিনি 30 এর ঘরও পার করতে পারেননি। মাতৃভাষা থে তার নম্বর ছিল মাত্র 44 ; সমাজ শিক্ষাতে ৪৫ আর মাত্র দু'টি বিষয়ে নম্বর 60 এর ওপরে। সেই দুটি বিষয়ের মধ্যে একটি বিষয় হলো শারীর শিক্ষা।

সম্প্রতি তার পোস্ট করা মার্কশিট এর ছবিটি সোশ্যাল সাইটে দিতেই সেটি ভাইরাল হয়ে যায়। বহু নেট নাগরিক তার প্রশংসা করেছেন। ছত্রিশগড়ের সিনিয়র আই এস ক্যাডার অবনীশ শরণ তাকে ট্যুইট করে বাহবা জানিয়েছেন। সেখানে বহু কমেন্টের মধ্যে নেট নাগরিকদের বক্তব্য, শুধুমাত্র একটি মার্কশিট দিয়ে কারো মূল্যায়ন করা সম্ভব নয়।

বোর্ডের পরীক্ষার পরে কেউ যদি অদম্য জেদ নিয়ে সঠিক পরীক্ষার মাধ্যমে কোন পরীক্ষার প্রিপারেশন নেওয়া শুরু করে , তবে সাফল্য আসবেই। মনের জোর রাখলেই হবে। ইউ পি এস সি পরীক্ষায় পাস করার জন্য ইংরেজী জানাও বাধ্যতামূলক নয়। এই কথাটি আগেও বহু অফিসার প্রমাণ করেছেন।

তুষারের আইএএস হবার আগে তার রেজাল্ট এবং বর্তমানে তার অবস্থান অনেকেই উদ্বুদ্ধ করেছে, অনুপ্রেরণা জুগিয়েছে এখনকার বহু ছাত্রছাত্রীকে। বোর্ডের রেজাল্ট খারাপ হলেই যারা বিপথে চলে যাওয়ার সম্ভাবনার কথা চিন্তা-ভাবনা করে, এই একটি ছবি তাদেরকে সম্পূর্ণরূপে ঘুরে যেতে সাহায্য করতে পারে।

Written by: Tanmoy Debnath

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ